বিবাহবিচ্ছেদ হলেও ভালোবাসা-বন্ধুত্বের বিচ্ছেদ হয়নি: ফারিয়া

শনিবার (২৮ নভেম্বর) বিকাল থেকে টক অব দ্যা টাউনে পরিণত হয়েছেন ছোট পর্দার জনপ্রিয় অভিনেত্রী শবনম ফারিয়া। বিয়ের মাত্র এক বছর ৯ মাসের মাথায় বিবাহ বিচ্ছেদ হয়েছে শবনম ফারিয়ার ।

বিষয়টি নিয়ে নানা সমালোচনায় মেতেছেন নেটিজেনরা। তবে সব সমালোচনার বাইরে গিয়ে শবনম ফারিয়া জানিয়েছেন, তাদের বিবাহ বিচ্ছেদ হয়েছে ঠিকই, তবে ভালোবাসা-বন্ধুত্বের বিচ্ছেদ হয়নি তাদের।

শবনম ফারিয়া গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন, অপুর সঙ্গে সম্পর্কে কোনো প্রকার তিক্ততা নেই। পরস্পরের সঙ্গে যোগাযোগ রেখে বিচ্ছেদের এই ধকল সামলাতে

চেষ্টা করছেন তাঁরা। আমাদের বিবাহ বিচ্ছেদ হয়েছে, কিন্তু ভালোবাসা বা বন্ধুত্বে বিচ্ছেদ হয়নি। যত দিন বেঁচে আছি, আমাদের ভালোবাসা ও বন্ধুত্ব থাকবে।

তিনি আরও জানিয়েছেন, সমস্যা যতটা না আমাদের দুজনের, তার চেয়ে বেশি আমাদের দুই পরিবারের। আমার বাবা নেই, মাকে নিয়ে আমার পরিবার। তার ওপর আমি বিনোদন অঙ্গনে কাজ করি।

আর দশজন মেয়ের বিবাহবিচ্ছেদ আর আমার বিবাহবিচ্ছেদ একেবারে ভিন্ন। আমি একটা মেয়ে, আমাদের সমাজ মেয়েদের দোষটাই আগে দেখবে জানি। সে কারণে অনেকভাবে চেষ্টা করেছি, যাতে সংসারটা টেকে। কিন্তু কোনোভাবেই সেটা সম্ভব হয়নি।

এর আগে শনিবার বিকালে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে হারুন অর রশীদ অপুর সাথে বিবাহ বিচ্ছেদের কথা জানান শবনম ফারিয়া। ২০১৮ সালের ১৭ ডিসেম্বর ঘটা করে বিয়ে করেন শবনম ফারিয়া। ২০১৫ সালে ফেইসবুকে অপুর সঙ্গে ফারিয়ার পরিচয়। কথায় কথায় একসময় গড়ে ওঠে বন্ধুত্ব।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*